1. nokhatronews24@gmail.com : ajkarsatkhiradarpan darpan : ajkarsatkhiradarpan darpan
  2. install@wpdevelop.org : sk ferdous :
টিকা না নেওয়া মানুষেরা ‘ভ্যারিয়েন্ট কারখানা’, বিশেষজ্ঞদের হুঁশিয়ারি - আজকের সাতক্ষীরা দর্পণ
সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:০১ পূর্বাহ্ন
১৩ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ খবর :
📰কানাডায় কনসুলেট জেনারেল হলেন দেবহাটার ফারুক হোসেন📰মহাপরিচালকের ব্যাজে ভূষিত হলেন দেবহাটার বীরু📰জেলা সাংবাদিক এসোসিয়েন সাতক্ষীরা’র উদ্যোগে জাকজমকপূর্ণ বনভোজন অনুষ্ঠিত📰সেঁজুতিকে ফুলের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সদর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানগণ📰দেবহাটায় ওয়ারেন্টভুক্ত দুই আসামি গ্রেপ্তার📰ভাষা সৈনিক লুৎফর সরদারের স্মৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন📰দেবহাটায় লাগসই প্রযুক্তি শীর্ষক সেমিনার ও প্রদর্শনী📰দেবহাটায় দরিদ্র জনগোষ্ঠীর মাঝে গরু বিতরণ📰পাইকগাছা সুবিধা বনঞ্চিত শিশুেদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ করেন মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর📰গণ টেলিভিশন অনুমোদন পাওয়ায় প্রতিষ্ঠানটির (সিইও) আনিসকে জেলা সাংবাদিক এ্যাসোসিয়েনের পক্ষ থেকে অভিনন্দন

টিকা না নেওয়া মানুষেরা ‘ভ্যারিয়েন্ট কারখানা’, বিশেষজ্ঞদের হুঁশিয়ারি

প্রতিবেদকের নাম :
  • হালনাগাদের সময় : শনিবার, ৩ জুলাই, ২০২১
  • ১৮ সংবাদটি পড়া হয়েছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনাভাইরাসের টিকা না নেওয়া মানুষেরা শুধু যে নিজের স্বাস্থ্য ঝুঁকি তৈরি করছেন তা নয়, করোনায় আক্রান্ত হলে তারা সবার জন্যই ঝুঁকি হয়ে যান। কারণ করোনাভাইরাস ভ্যারিয়েন্টের জন্ম হয় শুধু আক্রান্ত ব্যক্তির শরীরেই। যুক্তরাষ্ট্রের সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞরা এমনটাই দাবি করেছেন। ভ্যান্ডারবিল্ট ইউনিভার্সিটি মেডিক্যাল সেন্টারের সংক্রামক রোগ শাখার অধ্যাপক উইলিয়াম শ্যাফনার শুক্রবার সিএনএনকে বলেন, টিকা না নেওয়া মানুষেরা ভ্যারিয়েন্ট কারখানা। টিকা না নেওয়া যত বেশি মানুষ থাকবেন ভাইরাসের বংশবৃদ্ধির সুযোগ তত বাড়বে।
তিনি আরও বলেন, যখন বংশবৃদ্ধি ঘটে তখন ধরনও পাল্টায়। এই প্রক্রিয়ায় এমন ভ্যারিয়েন্ট চলে আসতে পারে যা এখনকার সবগুলোর চেয়ে বেশি ভয়ঙ্কর। সব ভাইরাসও ধরন পাল্টায়। শুধু করোনাভাইরাসই ধরন পাল্টাচ্ছে এমন না। এটিও বদলাচ্ছে এবং খাপ খাইয়ে নিচ্ছে। বেশিরভাগ পরিবর্তন তেমন গুরুত্বপূর্ণ। অনেক সময় এতে ভাইরাস দুর্বলও হয়ে পড়ে। কিন্তু কখনও ভাইরাসের মিউটেশন তাকে সুবিধা দেয়, আগের চেয়ে বেশি সংক্রামক বা কার্যকরভাবে প্রতিলিপি তৈরি কিংবা হোস্টকে ভয়াবহভাবে আক্রান্ত করতে পারে।
এমন সুবিধা পাওয়া ভাইরাস অন্য ধরনগুলোকে পেছনে ফেলে বেশিরভাগ মানুষকে আক্রান্ত করে। কোনও আক্রান্ত ব্যক্তি দ্বারা অন্যকে সংক্রমিত করেন তখন তার দেহ মিউট্যান্ট সংস্করণও যায়। যখন ভাইরাসের কোনও মিউট্যান্ট এমন সাফল্য পর্যাপ্ত পরিমাণে পায় তখন তা ভ্যারিয়েন্টে পরিণত হয়। কিন্তু এটিকে প্রতিলিপি তৈরি করতে হয়। আর এক্ষেত্রে টিকা না নেওয়া মানুষেরা সেই সুযোগ তৈরি করে দেন।
জনস হপকিন্স ব্লুমবার্গ স্কুল অব পাবলিক হেলথের মাইক্রোবায়োলজিস্ট ও ইমিউনোলজিস্ট অ্যান্ড্রিউ পেকোজ বলেন, ভাইরাসে যখন মিউটেশন হয় তখন আক্রান্ত ব্যক্তি জনসাধারণের মধ্যে তা ছড়াতে ভূমিকা রাখেন। প্রত্যেকবার ভাইরাসের পরিবর্তনের সময় আরও বেশি মিউটেশন যুক্ত হয়। এখন আমরা সেই ভাইরাস দেখতে পাচ্ছি যা আগেরচেয়ে অনেক দ্রুত কার্যকরভাবে ছড়াচ্ছে।
যেসব ভাইরাসে ছড়ায় না সেগুলো মিউট্যাট করতে পারে না। আলফা ভ্যারিয়েন্ট প্রথমে যুক্তরাজ্যে শনাক্ত হয়। দক্ষিণ আফ্রিকায় পাওয়া যায় বেটা ভ্যারিয়েন্ট। ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট প্রথম শনাক্ত হয় ভারতে। যুক্তরাষ্ট্রেও কয়েকটি ভ্যারিয়েন্ট পাওয়া গেছে। এরমধ্যে এপসিলন ক্যালিফোর্নিয়ায় এবং ইটা নিউ ইয়র্কে।
পেসকজ বলেন, প্রত্যেকবার যখন জনগণের মধ্যে ভাইরাস ছড়ায় তখন সেখানে ইমিউনিটি অর্জনকারী, টিকা নেওয়া এবং টিকা না নেওয়া মানুষেরা থাকে। ফলে ভাইরাস ছড়ানোর সুযোগ থাকে।ইমিউনিটি অর্জন করা কোনও মানুষকে যদি ভাইরাস আক্রমণ করে তবে তা ব্যর্থ হতে পারে বা সফল হতে পারে অথবা হালকা কিংবা উপসর্গহীন সংক্রমণ ছড়াতে পারে। এক্ষেত্রে ইমিউন ব্যবস্থার প্রতিক্রিয়ায় প্রতিলিপি তৈরি করে।
বিষয়টি ব্যাংক ডাকাতের মতো যাকে ধরিয়ে দেওয়ার পোস্টার সর্বত্রই সাঁটানো রয়েছে। যে ভাইরাস যথেচ্ছভাবে পরিবর্তিত হতে পারে তা ইমিউন ব্যবস্থা কাছে কম দৃশ্যমান হবে। টিকা না নেওয়া মানুষেরা শুধু যে ছড়ানোর সুযোগ দিচ্ছেন তা নয়, এর ফলে ভাইরাস বদলানোরও সুযোগ পাচ্ছে। বোস্টন কলেজের পেডিয়াট্রিসিয়ান ও ইমিউনোলজিস্ট ড. ফিলিপি ল্যান্ড্রিগান বলেন, এজন্য একজন মানুষের দেহে ভাইরাসে একটি মিউটেশনই যথেষ্ট।

আপনার সামাজিক মিডিয়ায় এই পোস্ট শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর :

সম্পাদক মণ্ডলীর সভাপতি:

এম এ কাশেম ( এম এ- ক্রিমিনোলজি).....01748159372

alternatetext

সম্পাদক ও প্রকাশক:

মো: তুহিন হোসেন (বি.এ অনার্স,এম.এ)...01729416527

alternatetext

বার্তা সম্পাদক: দৈনিক আজকের সাতক্ষীরা

সিনিয়র নির্বাহী সম্পাদক :

মো: মিজানুর রহমান ... 01714904807

নিবার্হী সম্পাদক :

এস.এম আবু রায়হান (বি.বি.এ)...01735045426

© All rights reserved © 2020-2023
প্রযুক্তি সহায়তায়: csoftbd